• ঢাকা
  • বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭
Safe Diagnostic Center

বারুদ ভরা আনারস খাইয়ে মারা হলো অন্তঃসত্ত্বা হাতিকে


লক্ষ্মীপুর টাইমস | আন্তর্জাতিক ডেক্স: প্রকাশিত: জুন ৩, ২০২০, ০২:৪৫ পিএম বারুদ ভরা আনারস খাইয়ে মারা হলো অন্তঃসত্ত্বা হাতিকে

বারুদ ভরা আনারস খাইয়ে মারা হলো অন্তঃসত্ত্বা হাতিকে
মানুষ যে কতটা নৃশংস হতে পারে, তা আরও একবার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল এই ঘটনা। একদিকে যখন বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও পশু হত্যা বন্ধের জন্য লড়াই করছেন পশুপ্রেমী সংগঠনগুলো, তখনই সমাজের আরেক অংশ চূড়ান্ত হিংস্র মনোভাব দেখাল এক হাতির প্রতি।

এক অন্তঃসত্ত্বা হাতি দলছুট হয়ে ঢুকে পড়েছিল লোকালয়ে। খাবার খুঁজছিল সে। তখন তাকে শায়েস্তা করতে একটি আনারসে বারুদ ভরে টোপ দেওয়া হয় হাতিটিকে। না বুঝেই হাতিটি ওই আনারস খেতে শুরু করে। তখনই বিকট শব্দে ক্ষত-বিক্ষত হয়ে ঝলসে যায় হাতিটির মুখ। সেখানে মারা যায় অবুঝ হাতিটি।


এই বর্বর ঘটনা ঘটেছে ভারতের কেরালা রাজ্যে। এই ঘটনা প্রাণিদের প্রতি মানুষের নিকৃষ্ট মানসিকতার পরিচয় দিল। ভারতে কেরালার বন অধিদফতরের এক কর্মকর্তা সামাজিক মাধ্যমে এই ঘটনা প্রকাশ করেছ।


মোহন কৃষাণ নামের ওই কর্মকর্তা লিখেছেন, হাতিটি সবাইকে ভরসা করেছিল। যখন সে আনারসটি খায়, তখনও। সে হয়ত নিজের কথা ভাবেনি, ভাবেনি শরীরের ভেতরে থাকা বাচ্চাটির কথাও। আর ১৮ থেকে ২০ মাসের মধ্যেই একটি নতুন প্রাণ পৃথিবীতে আনতে চলেছিল সে।


মুখের ভিতর বিস্ফোরক ফেটে যাওয়ার পরও হাতিটি কাউকে আঘাত করেনি। রাস্তা দিয়ে ছুটতে ছুটতে হাতিটি একটি নদীর পানিতে মুখ ডুবিয়ে বসে থাকে। পরে সেখানেই তার মৃত্যু হয়। সামাজিক মাধ্যমে এই ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন সবাই।

Side banner